যশোরে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় হিজড়ার গলা কাটা লাশ উদ্ধার

আরো পড়ুন

মনিরামপুর উপজেলার মাছনা গ্রামে মঙ্গলী খাতুন পলি (৩২) নামে এক হিজড়া নারীর নৃশংস হত্যার ঘটনায় তীব্র বিক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্থানীয়রা। শুক্রবার রাতে তার নিজ বাসস্থান থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় গলাকাটা মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহতের পরিবার ও প্রতিবেশীরা দাবি করেছেন, মঙ্গলী খাতুন পলি একজন সহজ-সরল মানুষ ছিলেন। তিনি নিয়মিত গ্রামে গ্রামে গিয়ে আশীর্বাদ বিতরণ করে জীবিকা নির্বাহ করতেন।

শুক্রবার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে মঙ্গলী খাতুনের বাড়ি থেকে দীর্ঘক্ষণ কোন সাড়া না পাওয়ায় প্রতিবেশীরা দরজায় ধাক্কাধাক্কি করে। দরজা না খোলায় তারা পুলিশকে খবর দেয়। রাত সাড়ে আটটার দিকে ঘটনাস্থলে পৌঁছে পুলিশ দরজা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। ঘরের মধ্যে মঙ্গলী খাতুনের মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখা যায়। তার হাত-পা বাঁধা ছিল এবং গলা কাটা ছিল।

মনিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মেহেদী মাসুদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানিয়েছেন, হত্যাকাণ্ডের কারণ এখনো অজানা। মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ মঙ্গলী খাতুনের হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

ঘটনার সত্য উদঘাটন ও অপরাধীদের গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশের পক্ষ থেকে তদন্ত চলছে।

জাগো/আর‌এইচ‌এম 

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ