যশোরে শিক্ষকের দুই পা কুপিয়ে বিচ্ছিন্নের ঘটনায় আরবপুরের হেলাল আটক

আরো পড়ুন

নিজস্ব প্রতিবেদক 
যশোরের প্লট ব্যবসায়ী সমিতির নেতা ও মাদরাসা শিক্ষক আব্দুল মালেকের দুই পা কুপিয়ে প্রায় বিচ্ছিন্ন করে দেয়ার ঘটনায় এক যুবককে আটক করেছে। আটক হেলাল আরবপুর দীঘিরপাড় এলাকার শেখ ফারুকের ছেলে। মঙ্গলবার রাত সাড়ে এগারোটায় বিমান অফিস মোড় থেকে তাকে আটক করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুরাতন কসবা পুলিশ ফাঁড়ির এসআই হেলাল উজ্জামান। বুধবার আদালতে সোপর্দ করা হলে বিচারক তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।
মামলা সূত্রে যানা যায়,গত শুক্রবার রাত সোয়া ৮টার দিকে আরবপুর আইডিয়াল মসজিদের পাশে আব্দুল মালেকের উপর হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। তার হাতে ও দুই পায়ে একাধিক কোপ মারে। এতে তার দুই পা প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। পরে তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন। কিন্তু তার অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে ঢাকায় রেফার্ড করলে ওই রাতেই তিনি তাতে ঢাকায় নিয়ে যান। এঘটনায় তার ছেলে আমান উল্লাহ পাঁচ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ৪/৫ জনের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মামলা করেছেন।
আসামিরা হলো, আরবপুর দিঘীরপাড় এলাকার মামুন , রাকিব , সাইদুল ইসলাম , জাকারিয়া ওরফে জাকার এবং রাব্বি ।
বাদীর অভিযোগ, আসামিরা আব্দুল মালেকের কাছে চাঁদা চায়। চাঁদা না দেয়ায় সন্ত্রাসীরা মালেকের প্লটে বসে মাদক সেবন এবং স্থানীয়দের বিরক্ত করতো। এজন্য আইডিয়াল সিটি মালিক সমিতির কোষাধ্যক্ষ আব্দুল মালেক থানায় মামলা করেন। মামলা করার কারণে তাকে ধরে নিয়ে যেয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে দুই পা প্রায় বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছে। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অপরাধে হেলালকে আটক করে।

 

জাগো/জেএইচ 

 

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ