মাছ কাটা নিয়ে মায়ের সঙ্গে ঝগড়া, কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

আরো পড়ুন

মায়ের সঙ্গে অভিমান করে রেশমা খাতুন (১৮) নামের এক কলেজছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। বুধবার রাতে চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গা উপজেলায় এ ঘটনা ঘটে। তার নিজ ঘর বন্ধ করে ঘাস মারা বিষপান করে। রাত ৮টার দিকে পরিবারের লোকজন উদ্ধার করে স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে নিলে তাকে মৃত ঘোষণা করেন। রেশমা উপজেলার আইলহাঁস ইউনিয়নের পারলক্ষ্মীপুর গ্রামের জরিপ হোসেনের মেয়ে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে কলেজছাত্রী রেশমা তার মা শাহেদা খাতুনের সঙ্গে মাছ কাটা নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়। পরে মায়ের সঙ্গে অভিমান করে নিজ ঘরে দরজা বন্ধ করে ঘাস মারা বিষপান করে আত্মহত্যা করে। পরে সংবাদ পেয়ে আলমডাঙ্গা থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো প্রস্তুতি চলছিল। এ বিষয়ে আলমডাঙ্গা থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।

রেশমার মা বলেন, আমার মেয়ে সরোজগঞ্জের তেতুল শেখ কলেজের দ্বাদশ শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। অভাবের সংসারে তার লেখাপড়ার খরচ জোগাতে সে নিজেই সেলাই মেশিনের কাজ করে। তাকে মাছ কাটতে বলায় আমার সাথে কথা কাটাকাটি হয়। আমার ওপরে অভিমান করে, দূরে চলে গেলো।

আলমডাঙ্গা থানার ওসি (তদন্ত) একরামুল হুসাইন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। সুরতহাল রিপোর্ট শেষ ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো হবে।

জাগো/এসআই

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ