ভয়কে জয় করে অনর্গল ইংরেজিতে প্রেজেন্টেশ দিলো যশোরের ১০ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা

আরো পড়ুন

নিজস্ব প্রতিবেদক 

অডিটোরিয়াম ভরা শিক্ষার্থী। সবার নজর সুজ্জিত মঞ্চের দিকে। পর্য়ায়ক্রমে একের পর এক বিদ্যালয়ের একেক দল অডিটোরিয়ামটির মঞ্চে উঠেছেন। মাল্টিমিডিয়ার প্রজেক্টরের স্কিনে ইংরেজি দেখাানো হচ্ছে নিজ নিজ বিদ্যালয়ের একাডেমিক কার্যক্রম। সেই কার্যক্রমের নানা চিত্র আবার ইংরেজিতে উপস্থাপন করেছেন উপস্থিত দর্শকদের সামনে। কিছুদিন আগেও যারা ইংরেজি দেখলে ভয় পেত; তারাই আবার অনর্গল ইংরেজিতে নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম তুলে ধরছেন। শনিবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত আন্ত:স্কুল ইংরেজি ‘প্রেজেন্টেশ’ প্রতিযোগিতায় এই আবহ সৃষ্টি হয় যশোর কালেক্টরেট স্কুলে। যা দেখে মুগ্ধ হন উপস্থিত শিক্ষার্থীদের অভিভাবকসহ শিক্ষক শিক্ষার্থীরা। আইডিয়া স্পোকেন-দ্য গেইম মেথডের আয়োজনে এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয় যশোরের স্বনামধন্য ১০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা।

IMG 20240203 WA0055

আয়োজকরা জানিয়েছেন, ‘স্মার্ট যশোর ফর স্মার্ট বাংলাদেশ” প্রকল্পের আওতায় যশোরের স্বনামধন্য দশটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের এক হাজার শিক্ষার্থীকে আইডিয়া স্পোকেন-দ্য গেইম মেথড টিম বিনামূল্যে ইএসএল এর মধ্যে দিয়ে ইংরেজি শেখাচ্ছে ৬ মাসব্যাপী। খেলতে খেলতে ইংরেজি শেখানোর এই প্রকল্পের সমাপ্তি হবে চলতি মাসে। সেই লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদের চ‚ড়ান্ত প্রে‘জেন্টেশন টিম’ বাছাইয়ের উদ্দেশ্যে এই আন্ত:স্কুল প্রেজেন্টেশন প্রতিযোগিতা। আইডিয়া স্পোকেন ইএসএল প্রোগ্রামের আওতায় থাকা ১০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো হলো- যশোর সরকারি বালিকা বিদ্যালয়, যশোর জিলা স্কুল, সখিনা গার্লস হাই স্কুল যশোর, যশোর নবকিশলয় স্কুল, কালেক্টরেট স্কুল যশোর, এম এস টি পি সরকারি বালিকা বিদ্যালয়, বাদশাহ ফয়সাল ইসলামি ইন্সটিটিউট ইদগাহ যশোর, যশোর আমিনিয়া মাদ্রাসা ও যশোর দারুল আমান দাখিল মাদ্রাসা।

এই প্রতিযোগিতার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আইডিয়া স্পোকেনের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান উপদেষ্টা হামিদুল হক। তিনি বলেন- ‘আইডিয়া স্পোকেন টিম ভীষণ সাহস নিয়ে যশোরের স্বনামধন্য দশটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বিনামূল্যে ইংরেজি শেখানোর কার্যক্রম শুরু করেছিলো। কোন কাজ শুরু করা সহজ, কিন্তু বাধাবিপত্তি পেরিয়ে শেষ করাটা অনিশ্চিত। কিন্তু সকল সীমাবদ্ধতাকে পার করে আমাদের সেই প্রকল্প এখন শেষের পথে। এই আয়োজন সম্পূর্ণ বিনামূল্যে হলেও আমার শিক্ষার্থীরা একদিনের জন্যও কোন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এর ক্লাস বাদ দেয়নি; একাধারে চলেছে বেøন্ডেড মেথডে প্রতি সপ্তাহের অনলাইন কার্যক্রমে ইংরেজি শিখন। এসবের মধ্যে দিয়ে দশ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের এক হাজার শিক্ষার্থী যারা ইংরেজিকে ভয় পেতো, তারা আজ ইংরেজি তে তাদের করছে, অনার্গল কথা বলছে, বক্তব্য রাখছে। প্রধানমন্ত্রীর স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তোলার প্রথম পিলার ‘স্মার্ট সিটিজেন’ তৈরির জন্য ইংরেজি শেখার গুরুত্বকে উপলব্ধি করেই আমাদের এই যাত্রার সূচনা ছিলো।

কালেক্টরেট স্কুলের প্রধান শিক্ষক মোদাচ্ছের হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন যশোর জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষক শোয়াইব হোসেন, সখিনা গার্লস হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক রওশন আরা ছবি, এমএসটিপি গার্লস স্কুলের প্রধান শিক্ষক খাইরুল আনাম, নবকিশলয় স্কুল যশোরের প্রধান শিক্ষক লাইলা শিরিন সুলতানা।

সখিনা গার্লস হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক রওশন আরা ছবি বলেন, ‘আমাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মেয়েদের অভ‚তপূর্ব পরিবর্তন আমরা স্বচক্ষে দেখেছি। যারা ইংরেজি বলতে ভয় পেতো, গলা কাঁপতো- ওরা আজ স্বেচ্ছায় ইংরেজি তে গল্প জমায়! আইডিয়া স্পোকেন এর এই অভ‚তপূর্ব উদ্যোগকে আমি সাধুবাদ জানাই।’

কালেক্টরেট স্কুল যশোরের প্রধান শিক্ষক মোদাচ্ছের হোসেন জানান, ‘আইডিয়া স্পোকেন অনেক আগে থেকেই আমাদের ছেলেমেয়েদের ইংরেজিতে দক্ষ করে তুলছে। এই উদ্যোগ থেমে যাওয়া উচিৎ হবেনা বলেই আমি মনে করি।’ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন আইডিয়া সমাজকল্যাণ সংস্থার সভাপতি সোমা খান, সাধারণ সম্পাদক জান্নাতুল ফেরদৌস, আইডিয়া স্পোকেনের কোর্ডিনেটর নাবিলা সুলতানা, আইডিয়া স্পোকেনের ফ্যাসিলিটেটর জেসমিন আক্তার কামনা, শাহরিয়ার খান প্রান্ত, মিতালি বালা প্রমুখ।

জাগো/জেএইচ 

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ