ইরানের প্রেসিডেন্ট নিহতের খবরে অস্থির জ্বালানি তেলের বিশ্ববাজার

আরো পড়ুন

ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির আবদোল্লাহিয়ানসহ হেলিকপ্টার বিধ্বস্তের ঘটনায় সব আরোহী নিহত হয়েছেন। আজ সোমবার ইরানের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এ তথ্য জানান।

বিশ্বের শীর্ষ জ্বালানি তেল উৎপাদনকারী দেশ ইরানের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে তেলের বিশ্ববাজারে অস্থিরতা দেখা দিয়েছে। পাশাপাশি, সৌদি আরবের বাদশা সালমানের অসুস্থতার খবরও পাওয়া গেছে, যা তেলের বাজারে আরো উত্তেজনা সৃষ্টি করেছে।

সোমবার আন্তর্জাতিক বাজারে দেখা গেছে, লেনদেন শুরুর পরপরই ব্রেন্ট ক্রুডের দাম ৪১ সেন্ট বেড়ে প্রতি ব্যারেল ৮৪ দশমিক ৩৯ ডলারে দাঁড়িয়েছে। ইউএস ওয়েস্ট টেক্সাস ইন্টারমিডিয়েট (ডব্লিউটিআই) ক্রুডের দাম ৫ সেন্ট বেড়ে প্রতি ব্যারেল ৮০ দশমিক ১১ ডলারে উঠেছে। জ্বালানি বাজার বিশ্লেষকদের মতে, তেলের দামের এই ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা মূলত রাইসির হেলিকপ্টার বিধ্বস্তের ঘটনার কারণে হয়েছে। এছাড়া, সৌদি যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমানের জাপান সফর বাতিলের খবরও তেলের বাজারে প্রভাব ফেলেছে। বাদশা সালমানের অসুস্থতার কারণে এই সফর বাতিল করা হয়েছে বলে জানা গেছে। বৈশ্বিক রাজনৈতিক অস্থিরতার মধ্যে এই ধরনের খবর জ্বালানি তেলের বাজারে অনিশ্চয়তা সৃষ্টি করছে।

উল্লেখ্য, রবিবার আজারবাইজান সীমান্তবর্তী এলাকায় একটি বাঁধ উদ্বোধন করতে যান ইরানি প্রেসিডেন্ট রাইসি। সেখানে আজারবাইজানের প্রেসিডেন্ট ইলহাম আলিয়েভও উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান শেষে তিনটি হেলিকপ্টারের বহর নিয়ে পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশের রাজধানী তাবরিজে ফিরছিলেন রাইসি ও তার সঙ্গে থাকা অন্যান্য কর্মকর্তারা। পথে পূর্ব আজারবাইজানের জোলফা এলাকার কাছে প্রেসিডেন্টকে বহনকারী হেলিকপ্টারটি বিধ্বস্ত হয়।

জাগো/আরএইচএম

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ